Update News

কোম্পানিগঞ্জে ‘সুপারির জন্য’ সীমান্ত পাড়ি, আটক ৮

কোম্পানীগঞ্জে সীমান্ত পাড়ি দিয়ে ভারতে যাওয়ার সময় চার বাংলাদেশিকে আটক করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। আটক চারজন হলেন- কোম্পানীগঞ্জের কালাইরাগের আলী হোসেন (২৪), নজির হোসেন (২১), আলী আকবর (২০) ও মখন মিয়ার ছেলে জুবায়েল আহমদ (২১)। রোববার দুপুরে চারজনের বিরুদ্ধে অবৈধভাবে ভারতে অনুপ্রবেশের দায়ে মামলা হলে পুলিশ চারজনকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে।
রোববার ভোরে কোম্পানীগঞ্জের কালাইরাগ থেকে তাদের আটক করা হয়। পুলিশ ও বিজিবি বলছে, তারা সুপারি কেনার জন্য সীমান্তের ওপারে যাচ্ছিলেন।
বিজিবি জানায়, কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার উত্তর দিক পুরোটা বাংলাদেশ-ভারত সীমান্ত। করোনা পরিস্থিতির কারণে সীমান্ত এলাকা কঠোর নজরদারির মধ্যে রাখা হয়েছে। এর মধ্যে ভোলাগঞ্জ, উৎমা ও কালাইরাগ এলাকায় বিজিবি সর্বোচ্চ সতর্ক অবস্থায় রয়েছে। ভোরের দিকে বিজিবির টহল দল কালাইরাগ থেকে চারজনকে আটক করে। অবৈধভাবে সীমান্ত পাড়ি দিয়ে ভারতে যাওয়ার প্রস্তুতিতে ছিলেন। বিজিবির হাতে ধরা পড়ার পর চারজনই স্বীকার করেন যে সুপারি কিনতে তাঁরা ওপারে যাচ্ছিলেন। তাঁদের কাছ থেকে ৪০০টি সুপারি উদ্ধারের কথাও জানিয়েছে বিজিবি।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, এই সীমান্ত এলাকার কিছু মানুষ এভাবে অবৈধ পথে সীমান্ত পাড়ি দিয়ে ভারত থেকে সুপারি নিয়ে এসে বাংলাদেশে বিক্রি করেন। সুপারি এখানার একটি অন্যতম চোরাচালান পণ্য।
কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি কে এম নজরুল ইসলাম বলেন, অবৈধভাবে ভারতে অনুপ্রবেশের দায়ে বিজিবি চারজনকে পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে। এ ঘটনায় মামলা হলে তাদের গ্রেপ্তার দেখিয়ে রোববার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*